x

এইমাত্র

  •  করোনাভাইরাসে বাংলাদেশে ষষ্ঠ ব্যক্তির মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত তিনজন
  •  বিশ্বজুড়ে করোনায় মৃত্যু ৪২ হাজার ছাড়াল, আক্রান্ত সাড়ে ৮ লাখের বেশি মানুষ
  •  করোনা ভাইরাস মহামারি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর পৃথিবীর জন্য সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ
  •  ৩০০ দুস্থ ও অসহায় মানুষকে খাওয়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন জেমি ডে

‘২৫ মার্চ বিশ্ব ইতিহাসে এক কলঙ্কময় অধ্যায়’

প্রকাশ : ২৬ মার্চ ২০১৯, ১৫:০২

জাগরণীয়া ডেস্ক

১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ বিশ্ব ইতিহাসে এক কলঙ্কময় অধ্যায়। বাঙালি জাতিকে পৃথিবী থেকে নিশ্চিহ্ন করার অভিপ্রায়ে পাকিস্তানি বর্বর হানাদার সেনাবাহিনী সেদিন যে পৈশাচিক হত্যাকাণ্ড চালিয়েছিল, তা বাংলার মুক্তিকামী মানুষকে দমিয়ে রাখতে পারেনি-বললেন জাপানে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা। এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানা যায়। 

২৫ মার্চ (সোমবার) রাজধানী টোকিওতে বাংলাদেশ দূতাবাসের বঙ্গবন্ধু মিলনায়তনে জাতীয় গণহত্যা দিবস যথাযথ মর্যাদায় পালন করেছে। দিবসটি উপলক্ষে সবাই কালো ব্যাজ ধারণ করেন। মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালনের মধ্য দিয়ে দিবসের কার্যক্রম শুরু হয়। এরপর শহীদদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে দোয়া করা হয়। পরে দিবসটি উপলক্ষে প্রদত্ত বাণী পাঠ করা হয়। এরপর শুরু হয় আলোচনা অনুষ্ঠান।

আলোচনা অনুষ্ঠানে দেশটিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা বলেন, ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ কালরাতে ঘুমন্ত, নিরস্ত্র ও নিরপরাধ বাঙালির ওপর মানব ইতিহাসের জঘন্য ও নৃশংসতম যে হত্যাযজ্ঞ চালায় তৎকালীন পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী সেই কালো রাতকেই স্মরণ করে ২৫ মার্চকে জাতীয় গণহত্যা দিবস হিসেবে পালন করা হয়।

তিনি আরও বলেন, এই দিনটিকে আন্তর্জাতিক গণহত্যা দিবস হিসেবে স্বীকৃতি আদায়ের জন্য সরকার ও বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশের দূতাবাসগুলো কাজ করে যাচ্ছে। আর এই স্বীকৃতি অর্জনের মাধ্যমেই শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা প্রদর্শন পরিপূর্ণতা পাবে।

এ সময় দূতাবাসের সব কর্মকর্তা-কর্মচারী ও অনেক প্রবাসী বাংলাদেশি উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠান শেষে গণহত্যা দিবসের ওপর নির্মিত তথ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত