x

এইমাত্র

  •  দেশে আরও ৯ করোনা রোগী শনাক্ত, মৃত্যু ২ জনের
  •  চট্টগ্রামে প্রথম করোনা শনাক্ত; ৩ চিকিৎসকসহ ১৮ জন কোয়ারেন্টিনে
  •  রোববারের মধ্যে ১০ টাকা চালের বেনামি কার্ড জমা দেয়ার নির্দেশ

ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’: উপকূলে সাড়ে ১৩ লাখ মানুষ আশ্রয়কেন্দ্রে

প্রকাশ : ০৪ মে ২০১৯, ১৩:৪৭

জাগরণীয়া ডেস্ক

দক্ষিণপূর্ব বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপ থেকে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ ভারত থেকে প্রবেশের পর উপকূলীয় জেলাগুলোর ঝুঁকিপূর্ণ অঞ্চলের ১৩ লাখ ৬৪ হাজার ৮৮৬ জন মানুষকে আশ্রয় কেন্দ্রে নেওয়া হয়েছে।

০৪ মে (শনিবার) দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের জাতীয় দুর্যোগ সাড়াদান সমন্বয় কেন্দ্র এ তথ্য জানায়।

সেখানে দায়িত্বরত কর্মকর্তারা বলেন,  ঝুঁকিপূর্ণ অঞ্চলের ১৩ লাখ ৬৪ হাজার ৮৮৬ জন মানুষকে আশ্রয় কেন্দ্রে নেওয়া হয়েছে, এই সংখ্যা আরও বাড়বে। আশ্রয়কেন্দ্রের আশপাশে যারা আছেন অনেকেই জানমালের নিরাপত্তার কারণে রয়ে গেছেন। ঝড় শুরুর কিছুক্ষণ আগে তারাও আশ্রয়কেন্দ্রে অবস্থান নেন। 

উল্লেখ্য, আবহাওয়ার পূর্বাভাসে ০৩ মে (শুক্রবার) বিকেল ৩টার দিকে উড়িষ্যা উপকূলে ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’র আঘাত হানার কথা থাকলেও সকাল ৮টা ৫০ মিনিটের দিকে ভারতের উড়িষ্যা রাজ্যের গোপালপুর ও পুরীতে আছড়ে পড়ে ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’। এসময় বাতাসের বেগ ছিল ঘন্টায় ১৯৫ কিলোমিটার। ঝড়টি উপকূলে আঘাত হানার পর পশ্চিমবঙ্গ হয়ে শনিবার সকালে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল দিয়ে বাংলাদেশে ঢুকেছে।

ঝড়টি দুর্বল হয়ে বাংলাদেশে ঢোকায় আশঙ্কা অনেকটাই কেটে গেছে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। তবে ঝড়ের প্রভাবে উপকূলীয় এলাকাসহ মধ্য ও উত্তরাঞ্চলে বৃষ্টি ও ঝড়ো হাওয়ার আভাস দেওয়া হয়েছে। 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত