x

এইমাত্র

  •  দেশে আরও ৯ করোনা রোগী শনাক্ত, মৃত্যু ২ জনের
  •  চট্টগ্রামে প্রথম করোনা শনাক্ত; ৩ চিকিৎসকসহ ১৮ জন কোয়ারেন্টিনে
  •  রোববারের মধ্যে ১০ টাকা চালের বেনামি কার্ড জমা দেয়ার নির্দেশ

বাঁচানো গেল না জয়পুরহাটের সেই মনোয়ারা বেগমকে

প্রকাশ : ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১২:৪৯

জাগরণীয়া ডেস্ক

শীত নিবারণের জন্য আগুন পোহাতে গিয়ে দগ্ধ মনোয়ারা বেগম দীর্ঘ ১ মাস পর অবশেষে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়লেন। মনোয়ারা বেগম জয়পুরহাট সদরের চকশ্যাম গ্রামের হত দরিদ্র রিকশা চালক আবুল হোসেনের স্ত্রী।

জানা যায়, ২৩ জানুয়ারি রাত ১০টার দিকে বাড়ির সকলের অনুপস্থিতিতে মনোয়ারা বেগম শীত নিবারণের জন্য রান্নার চুলাতে আগুন পোহাচ্ছিলেন। এ সময় চুলার আগুন শরীরে লেগে গেলে তার আর্ত চিৎকারে আবুল হোসেনের বড় ভাই আব্দুল ওহাব ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে স্থানান্তর করেন।

সেখানেও তিনি প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সেবা না পেলে পরিবারের সদস্যরা পরের দিন দুপুরে টিএমএসএস মেডিক্যাল কলেজ ও রফাতুল্লাহ কমিউনিটি হসপিটালে ভর্তি করায়। আর সেখানেই দায়িত্বরত চিকিৎসক ১৩ দিন চিকিৎসা শেষে কোনো বার্ন ইউনিটে ভর্তির পরামর্শ দিয়ে ছাড়পত্র দিলে গত ফেব্রুয়ারি রাতে পরিবারের সদস্যরা তাকে বাড়িতে নিয়ে আসে। সর্বশেষ অনেকটা অর্থাভাবেই চিকিৎসা করাতে না পেরে সবাইকে কাঁদিয়ে শনিবার বিকেলে না ফেরার দেশে চলে গেলেন দরিদ্র মনোয়ারা বেগম।

নিহত মনোয়ারা বেগমের ছেলে মনোয়ার হোসেন জানান, শুধুমাত্র অর্থাভাবে সঠিক চিকিৎসা করাতে না পেরেই আমার মা মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়লেন। এমন করুণ পরিণতি আর যেন কোনো মায়ের না হয়।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত