x

এইমাত্র

  •  জুনে ধর্ষণের শিকার শতাধিক নারী-শিশু: মহিলা পরিষদ
  •  ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ সস্ত্রীক কোভিডে আক্রান্ত
  •  গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় নতুন সংক্রমিত ৩৭৭৫ জন, মৃত ৪১ জন
  •  বিশ্বে করোনায় মোট মারা গেছেন ৫ লাখ ১৮ হাজার ৯৬৮ জন
  •  বিশ্বে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সুস্থ ৬০ লাখ ২৮ হাজার ২২৯ জন

স্বামীর পরকীয়া ও অপমান সইতে না পেরে আত্মহত্যা

প্রকাশ : ০৫ মার্চ ২০১৯, ১৬:১৫

জাগরণীয়া ডেস্ক

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে স্বামীর পরকীয়া সহ্য করতে না পেরে আত্মহত্যা করেছেন এক গৃহবধূ। নিহত গৃহবধূর নাম সাথী আক্তার দীপা (২৫)। তিনি গোয়ালন্দ পৌরসভার আলম চৌধুরীর পাড়ার আ. সালাম প্রামানিকের মেয়ে।

এ ঘটনায় ওই গৃহবধূর বাবা বাদী হয়ে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় তার দীপার স্বামী রাসেল চৌধুরী (৩০) ও তার প্রেমিকা সেতু (৩৫) কে আসামী করে আত্মহত্যার প্ররোচনার মামলা দায়ের করেছেন।  

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ৩ বছর আগে সালাম প্রামানিকের মেয়ে দীপার সাথে গোয়ালন্দ পৌরসভার জুড়ান মোল্লার পাড়ার মঞ্জু চৌধুরীর ছেলে রাসেল চৌধুরীর পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। তাদের দু’জনেরই এটা ২য় বিয়ে ছিল। বিয়ের পর থেকে তারা ঢাকায় বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতেন। বছরখানেক আগে রাসেল চৌধুরী গোয়ালন্দের আরেক গৃহবধূ সেতুর সাথে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন। এ কারণে রাসেল চৌধুরী দীপাকে শারীরিকভাবে নির্যাতন করতে থাকেন। 

৪ মাস আগে রাসেল চৌধুরী তার প্রেমিকা সেতুকে তার ঢাকার বাসায় নিয়ে তুলেন এবং স্ত্রী দীপাকে জানান যে তিনি সেতুকে বিয়ে করবেন। বিষয়টি মানতে না পেরে দীপা সেখান থেকে গোয়ালন্দে বাবার বাড়িতে চলে আসেন। এরপর থেকে রাসেল চৌধুরী ও সেতু ফোনে বিভিন্ন সময় দীপাকে সরে দাঁড়ানোর জন্য চাপ দিতে থাকেন। গত ২৮ ফেব্রুয়ারি (বৃহস্পতিবার) একটি পারিবারিক অনুষ্ঠানে রাসেল চৌধুরী ও সেতুর সাথে দীপার দেখা হয়। এসময় তারা দীপাকে অপমানজনক বিভিন্ন কথা বলেন। স্বামীর পরকীয়া ও অপমান সইতে না পেরে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় দীপা বাবার বাড়িতে এসে নিজ ঘরে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে।

এ বিষয়ে গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি মো. এজাজ শফী জানান, নিহত দীপার ময়নাতদন্ত শেষে পরিবারের কাছে লাশ হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ঘটনায় গোয়ালন্দ ঘাট থানায় মামলা হয়েছে। এজাহারভুক্ত দুই আসামীকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত